বাংলাদেশ ব্যাংকের ও দেশের অন্যান্য ব্যাংকের মুনাফা ২০২৩। বাংলাদেশ ব্যাংকের মুনাফা ও অন্যান্য ব্যাংকের মুনাফা তুলনা রূপ কেমন তা জেনে নেই

বাংলাদেশ ব্যাংক ও অন্যান্য ব্যাকের তালিকা ভুক্ত কিছু মুনাফা ২০২০ -২০২২ সালের

বাংলাদেশ ব্যাংকের মুনাফা অন্যন্য ব্যাংকের মুনাফা টেবিল

  বাংলাদেশের কিছু বৃহত্তম ব্যাংকের মুনাফা এবং অন্যান্য পরিসংখ্যান হল

ব্যাংকের নাম মোট সঞ্চয় মোট ঋণ মোট লাভ

  • বাংলাদেশ ব্যাংক ৫,৫৯,৩৯৭ মিলিয়ন টাকা ৫,০৪৬ মিলিয়ন টাকা ৪২৬ মিলিয়ন টাকা
  • সোনালী ব্যাংক ৩,৩৯২ মিলিয়ন টাকা ২,৪৮০ মিলিয়ন টাকা ৩০৬ মিলিয়ন টাকা
  • অগ্রণী ব্যাংক ২,০৭৮ মিলিয়ন টাকা ২,৩০৬ মিলিয়ন টাকা ৩২০ মিলিয়ন টাকা
  • ঢাকা ব্যাংক ১,৯৩০ মিলিয়ন টাকা ১,৮৬১ মিলিয়ন টাকা ১৪৬ মিলিয়ন টাকা
  • ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ ১,৬০৮ মিলিয়ন টাকা ১,২৬০ মিলিয়ন টাকা ৩০৮ মিলিয়ন টাকা

 এই সংখ্যাগুলি প্রায় সাধারণতম সময়ে পরিমাপ করা হল।

বাংলাদেশ ব্যাংকের মুনাফা 

বাংলাদেশ ব্যাংক হল বাংলাদেশের প্রধান কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এটি দেশের আর্থিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে এবং সরকারের বাণিজ্য নীতিগুলি সম্পাদন করে। বাংলাদেশ ব্যাংক প্রতিষ্ঠানের সাধারণ প্রাপ্তি এবং ব্যবহারকারীদের নিরাপত্তার জন্য বিভিন্ন পণ্য এবং পরিষেবার মাধ্যমে বিভিন্ন আর্থিক সুবিধা প্রদান করে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের বছরের মুনাফা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে হলে বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক বছর পর্যন্তের আর্থিক রিপোর্ট দেখা যেতে পারে। সর্বশেষ প্রকাশিত আর্থিক রিপোর্ট অনুযায়ী, ২০২০-২০২২ আর্থিক বছরে বাংলাদেশ ব্যাংকের মোট কার্যকারিতা মুনাফা ৮৫.১৫ বিলিয়ন টাকা ছিল। এর মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক প্রতিষ্ঠানের মোট মুনাফা ৬৬.৯৩ বিলিয়ন টাকা ছিল। এর মধ্যে রিজাভে মুনাফা বেড়েছে ৯০৯%।

দেশের অন্যান্য ব্যাংকের মুনাফা

অন্যান্য ব্যাংক দেশের আর্থিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে এবং সরকারের বাণিজ্য নীতিগুলি সম্পাদন করে। বাংলাদেশ ব্যাংক প্রতিষ্ঠানের সাধারণ প্রাপ্তি এবং ব্যবহারকারীদের নিরাপত্তার জন্য বিভিন্ন পণ্য এবং পরিষেবার মাধ্যমে বিভিন্ন আর্থিক সুবিধা প্রদান করে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের বছরের মুনাফা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে হলে বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক বছর পর্যন্তের আর্থিক রিপোর্ট দেখা যেতে পারে। সর্বশেষ প্রকাশিত আর্থিক রিপোর্ট অনুযায়ী, ২০২০-২০২২ আর্থিক বছরে বাংলাদেশ ব্যাংকের মোট কার্যকারিতা মুনাফা ৬০.২০ বিলিয়ন টাকা ছিল। এর মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক প্রতিষ্ঠানের মোট মুনাফা ৫৬.৯৩ বিলিয়ন টাকা ছিল।

ব্যাংকের নাম মোট সঞ্চয় মোট ঋণ মোট লাভ

বাংলাদেশ ব্যাংক ৫,৫৯,৩৯৭ মিলিয়ন টাকা ৫,০৪৬ মিলিয়ন টাকা ৪২৬ মিলিয়ন টাকা

সোনালী ব্যাংক ৩,৩৯২ মিলিয়ন টাকা ২,৪৮০ মিলিয়ন টাকা ৩০৬ মিলিয়ন টাকা

অগ্রণী ব্যাংক ২,০৭৮ মিলিয়ন টাকা ২,৩০৬ মিলিয়ন টাকা ৩২০ মিলিয়ন টাকা

ঢাকা ব্যাংক ১,৯৩০ মিলিয়ন টাকা ১,৮৬১ মিলিয়ন টাকা ১৪৬ মিলিয়ন টাকা

ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ ১,৬০৮ মিলিয়ন টাকা ১,২৬০ মিলিয়ন।

বাংলাদেশের ব্যাকের মুনাফা সুবিধা 

বাংলাদেশে ব্যাংক একটি গুরুত্বপূর্ণ অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠান। বাংলাদেশের ব্যাংকগুলো একটি দেশের অর্থনৈতিক প্রগতির উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। বাংলাদেশের ব্যাংক বিভিন্ন সুবিধা প্রদান করে যা নিম্নলিখিত

নিরাপত্তা এবং সুরক্ষা বাংলাদেশের ব্যাংক নিরাপত্তা ও সুরক্ষা সম্পর্কে বেশ সতর্ক থাকে। তাদের সিস্টেম ও প্রযুক্তি প্রকৃতি ভিত্তিক হয় যা নিরাপত্তা ও সুরক্ষার বিষয়ে সম্পূর্ণ সুনির্দিষ্ট হয়।

  •  লোন প্রদান বাংলাদেশের ব্যাংক লোন প্রদান করে এবং এদের সাথে কার্যকরী মুলতবি হিসাব ব্যবস্থা থাকে।
  • ব্যাংক কার্ড বাংলাদেশে ব্যাংক কার্ড একটি সুবিধাজনক পদক্ষেপ। এটি সম্পূর্ণ বেফাক্তর হয় বাকি সকল প্রকার টাকা লেনদেন থেকে।
  • ইলেকট্রনিক্স নিরাপত্তা ও সুরক্ষা সম্পর্কে বেশ সতর্ক থাকে। তাদের সিস্টেম ও প্রযুক্তি প্রকৃতি ভিত্তিক হয় যা নিরাপত্তা ও সুরক্ষার বিষয়ে সম্পূর্ণ সুনির্দিষ্ট হয়।

বাংলাদেশের বিভিন্ন ব্যাংক মুনাফা হালনাগাদ করে থাকে। নিচে বাংলাদেশের কিছু জনপ্রিয় ব্যাংকের মুনাফা টেবিল দেওয়া হল

  • ডাচ্ বাংলা ব্যাংক ২৩.৬৭%
  • সিটিজেন্স ব্যাংক ১৯.২৮%
  • সোনালী ব্যাংক:১৮.৮২%
  • ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড ১৮.৭২%
  • নগদ ১৬.৫০%
  • ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড: ১৪.৪৯%
  • উত্তরা ব্যাংক লিমিটেড: ১৩.৫৫%
  • জনতা ব্যাংক লিমিটেড: ১২.৫৪%
  • এক্সিম ব্যাংক লিমিটেড: ১১.৪৮%
  • বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক: ১০.০০%

এগুলি শুধুমাত্র সাধারণ তথ্য এবং তারিখ হিসাবে সঠিক হতে পারে। বিভিন্ন সার্ভিস চার্জ, ব্যাংকের নীতিমালা এবং অন্যান্য উপায়ে মুনাফার পরিমাণ পরিবর্তিত হতে পারে। তাই সেটি আপনার পছন্দমত।

ডাচ-বাংলা ব্যাংক মুনাফা টেবিল 

ডাচ-বাংলা ব্যাংক বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রতিষ্ঠিত ব্যাংক হিসাবে পরিচিত। এই ব্যাংকের মুনাফা টেবিল নিচে দেওয়া হলঃ

ক্ষেত্র হালনাগাদ মুনাফা হার (২০২০-২০২২)

কর্পোরেট ব্যাংকিং ৩৫.০৯%

রিটেইল ব্যাংকিং ২৫.৪০%

ইনভেস্টমেন্ট ব্যাংকিং ২০.৯২%

এসএমই ব্যাংকিং ১৮.৫৪%

ট্রেড ফাইন্যান্স ৪৮.৩০%

 বিনিয়োগ ব্যাংকিং ২৫.৪০%

সোনালী  ব্যাংক মুনাফা টেবিল

ডাচ-বাংলা ব্যাংক বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রতিষ্ঠিত ব্যাংক হিসাবে পরিচিত। এই ব্যাংকের মুনাফা টেবিল নিচে দেওয়া হল

ক্ষেত্র হালনাগাদ মুনাফা হার (২০২০-২০২২)

  1. কর্পোরেট ব্যাংকিং ৪৫.০৯%
  2. রিটেইল ব্যাংকিং ৩০.৪০%
  3.  ইনভেস্টমেন্ট ব্যাংকিং ২৫.৯২%
  4. এসএমই ব্যাংকিং ১৮.৫৪%
  5.  ট্রেড ফাইন্যান্স ৫০.৩০%
  6.  বিনিয়োগ ব্যাংকিং ৩০৪০%

বাংলাদেশ কৃষি  ব্যাংক মুনাফা টেবিল

ডাচ-বাংলা ব্যাংক বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রতিষ্ঠিত ব্যাংক হিসাবে পরিচিত। এই ব্যাংকের মুনাফা টেবিল নিচে দেওয়া হল

ক্ষেত্র হালনাগাদ মুনাফা হার (২০২০-২০২২)

কর্পোরেট ব্যাংকিং ৫০.০৯%

রিটেইল ব্যাংকিং ৪০.০৯%

 ইনভেস্টমেন্ট ব্যাংকিং ৩০.৯২%

এসএমই ব্যাংকিং ১৮.৫৪%

 ট্রেড ফাইন্যান্স ৫০.৩০%

 বিনিয়োগ ব্যাংকিং ৪০.৪০%

  • বাংলাদেশ ব্যাংকের মুনাফা দেওয়া নিয়ম দেশের অন্যান্য ব্যাকের মুনাফা দেওয়া নিয়ম

বাংলাদেশ ব্যাংক একটি কেন্দ্রীয় ব্যাংক এবং এর মুনাফা প্রধানত পাঁচটি উৎস থেকে আসে – কারেন্ট একাউন্ট মুনাফা, সেভিংস একাউন্ট মুনাফা, ডিপোজিট মুনাফা, লোন মুনাফা এবং মোবাইল ব্যাংকিং মুনাফা।

বাংলাদেশ ব্যাংকের কারেন্ট একাউন্ট মুনাফা প্রতি মাসের শেষে পরিশোধ করা হয়। এর পরিমাণ সাধারণত ০.১% থেকে ০.৫% এর মধ্যে হতে পারে।

সেভিংস একাউন্ট মুনাফা প্রতি মাসের শেষে পরিশোধ করা হয়। এর পরিমাণ আমানতের পরিমাণ এবং আমানতের মেয়াদের উপর নির্ভর করে ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে।

ডিপোজিট মুনাফা একবার আমানত করার পর পরিশোধ করা হয়। এর পরিমাণ এবং মেয়াদ বিনিময়ে ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের লোন মুনাফা হলো লোন পরিশোধের সময়ে প্রদত্ত মুনাফা। এর পরিমাণ লোনের পারে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *