HSC পরীক্ষা প্রস্তুতি ২০২৩। HSC ২০২৩ পরীক্ষা প্রস্তুতি জন্য কিছু নোট PDF

HSC পরীক্ষা প্রস্তুতি ২০২৩

 

 

HSC ২০২৩ পরীক্ষা প্রস্তুতি জন্য কিছু নোট PDF(১)

HSC ২০২৩ পরীক্ষা প্রস্তুতি জন্য কিছু নোট PDF(২)

HSC ২০২৩ পরীক্ষা প্রস্তুতি জন্য কিছু নোট PDF(৩)

HSC ২০২৩ পরীক্ষা প্রস্তুতি জন্য কিছু নোট PDF(৪)

 

১. HSC পরীক্ষা প্রস্তুতি কত দিন বাকি আছে 

 

 

HSC ২৩ ব্যাচ এর জন্য যাদের এক্সাম শুরু হবে ১৭ আগস্ট।

তোমাদের হাতে একজন সময় আছে আর মাত্র ৪৫ দিন । এই সময়টা অবশ্যই নতুন কিছু শিখে নষ্ট করা যাবে না। এতদিনে আশাকরি তোমরা পুরা সিলেবাস একবার হলেও শেষ করেছ। যারা অন্তত একবার বা দুবার অথবা মোটামুটি ভালো করে সিলেবাস শেষ করেছ তারা এখন HSC র জন্যে কিভাবে প্রস্তুতি নিবে বা রিভিশন করবে সেটা নিয়ে একটা study planner বানিয়েছি।

এই কয়টা দিন তোমাদের অ্যাডমিশন রিলেটেড কোনো পড়ার দিকে সময় না দেয়াই ভালো যদিনা অনেক বেশি exceptional স্টুডেন্ট হয়ে থাকো। তবুও বলবো এই টাইম টুকু অ্যাডমিশন রিলেটেড চিন্তার পিছে না দিতে কারণ বাই চান্স এর লাইসেন্স নাই। HSC তে পিসিএম (ফিজিক্স, কেমিস্ট্রি, ম্যাথ) এ যথেষ্ট মার্কস না থাকলে মোস্ট ইঞ্জিনিয়ারিং ইউনিভারসিটি তে প্রাইমারি সিলেকশন এ আসতে পারবে না। শুধু A+ রাখতে চাইলে বুয়েট , আইউটি তে প্রাইমারি সিলেকশন এ আসার সম্ভাবনা অনেক কম। আর যাদের মেডিক্যাল অথবা ভার্সিটি টার্গেট তারাও ভালো মার্ক রাখলে সেফ থাকবে, যেকোনো জায়গায় এক্সাম দেয়ার যোগ্যতা থাকবে। তাই এই সময়টা HSC কে গুরুত্ব দিয়ে পড়তে হবে যেহেতু এবার ফুল মার্ক এই এক্সাম হচ্ছে। আমিও এই সময়টা HSC এর দিকে দিয়েছি এবং স্কলারশিপ ও পেয়েছি।

 

২. এবার আসি study plan এ

 

 

প্রথম এ দিনে কতটুকু সময় কোন সাবজেক্ট পড়বে সেটার একটা জেনারেল টাইম টেবিল দিচ্ছি।

9am – 1pm  Physics 

1pm – 6pm  Math

6pm – 9pm  Chemistry 

9pm – 12am  Biology 

12am – 3am  ICT + English/ Bangla+ English

এটা জেনারেল রুটিন, ইচ্ছা করলে তোমরা নিজের মতো একটা ডেইলি টাইম সেটআপ করে নিতে পারো। আর হ্যা এই সময়টায় রুটিন টা এমন ভাবে করো যাতে একটু বেশি প্রেসার নিতে পারো, না হলে অ্যাডমিশন এ ডুবে যাবে প্রেসার এ। আমার দেয়া সেটআপ অনুযায়ী ৬ ঘন্টা ঘুমানোর সময় পাচ্ছ। আর খাওয়া, গোসল এই কাজ গুলো যত তাড়াতাড়ি সম্ভব করে ফেলবে এবং কোনো কিছুতে সময় নষ্ট করবে না।

এবার এই টাইম টেবিল ফলো করে আগামী ৪৫ দিন এর মধ্যে রিভাইজ দিবে কিভাবে সেটার প্ল্যান এ আসি।

 

১.  ফিজিক্স

(প্রতি চ্যাপ্টার এর জন্যে দুদিন সময়)

প্রথম দিন – বই / চ্যাপ্টার এর ক্লাস লেকচার+ বই থেকে দাগানো ম্যাথ প্র্যাক্টিস। বই রিডিং পরে সময় নষ্ট করবে না , গুরুত্বপূর্ণ অংশ, সূত্র, ম্যাথ এগুলো পড়বে+ বই এর mcq

দ্বিতীয় দিন – টেস্ট পেপার থেকে বেছে বেছে সৃজনশীল প্রাকটিস করবে, বোর্ড এ ওই চ্যাপ্টার থেকে আসা সৃজনশীল গুলো অবশ্যই আগে করবে। এবং বোর্ড এ+ কলেজ এর টেস্ট এক্সাম এ আশা mcq গুলো টেস্ট পেপার থেকে করবে।

ফিজিক্স এর নিউটনীয় বলবিদ্যা, work energy power, চল তড়িৎ , স্থির তড়িৎ এই চারটা চ্যাপ্টার একটু বড়, এগুলো তে তিনদিন সময় দিতে পারো সর্বোচ্চ। সেই হিসাবে হাইয়েস্ট ৩৪ দিন লাগবে ফিজিক্স খুব ভালো করে শেষ হতে। আর দুদিন করেই যদি সময় দাও তাহলে ২৮ দিন লাগবে।

 

২. কেমিস্ট্রি

( প্রতি চ্যাপ্টার এর জন্য চারদিন সময়, শুধু জৈব যৌগ চ্যাপ্টার এ ছয়দিন সময়)

 

প্রথম দিন – বই এর ম্যাথ সহ চ্যাপ্টার এর অর্ধেক অংশ

দ্বিতীয় দিন – অবশিষ্ট অর্ধেক

তৃতীয় দিন – বইয়ের কোনো ম্যাথ বা প্রশ্ন বাকি থাকলে সেটা+ বই ও টেস্ট পেপার এর mcq সলভ

চতুর্থ দিন – টেস্ট পেপার থেকে সৃজনশীল (বোর্ড এ আশা প্রশ্নের প্রায়োরিটি বেশি)

আর জৈব যৌগ ছয়দিন সময় নিবে, প্রথম চারদিন বই / লেকচার আর পরের দুদিন টেস্ট পেপার+ mcq solve। তাহলে chemistry শেষ করতে সময় লাগবে ৩৪ দিন।

 

৩. ম্যাথ

( প্রতি চ্যাপ্টার এ দুদিন সময়)

Integration, differentiation, গতি বিদ্যা, কনিক এ তিনদিন সময় নিতে পারো

 

প্রথম দিন – বই থেকে ম্যাথ প্র্যাক্টিস

দ্বিতীয় দিন – টেস্ট পেপার থেকে শুধু বোর্ড এ আশা ম্যাথ করলেই হবে, আর mcq

এতে ম্যাথ ৩০ দিনে শেষ করতে পারবে, একটু extend করে ৩৪ দিন সর্বোচ্চ সময় নিতে পারো।

 

৪. বায়োলজি

( প্রতি চ্যাপ্টার এর জন্য দুদিন সময় নিবে তবে উদ্ভিদ শরীর তত্ত্ব চ্যাপ্টার টায় তিনদিন সময় নিতে পারো)

প্রথম দিন – চ্যাপ্টার এর ⅔ অংশ পড়বে

দ্বিতীয় দিন – বাকি ⅓ অংশ + টেস্ট পেপার থেকে mcq, বই এর mcq ও টেস্ট পেপার থেকে অল্প কিছু প্রশ্ন দেখলেই হবে। খুব বেশি সৃজনশীল দেখার ও তেমন দরকার নেই। জ্ঞান মূলক প্রশ্ন আর অনুধাবন ভালো করে দেখবে।

 

এতে বায়োলজি ৩০ দিন লাগবে শেষ করতে।

 

৫. আইসিটি 

(প্রতি চ্যাপ্টার এর জন্য চারদিন)

নিজের মতো করে পড়বে+ টেস্ট পেপার দেখবে

এতে আইসিটি শেষ হতে ১৬ লাগবে এবং অবশ্যই প্রথম ১৬ দিনে আইসিটি শেষ করে ফেলো। কারণ বাংলা পড়ার টাইম বের করতে হবে।

 

৬.  ইংলিশ

আমার দেয়া টাইম টেবিল এ রাত ১২ টা থেকে ২ টা পর্যন্ত আইসিটি/ বাংলা পড়বে, আর বাকি এক ঘন্টা ইংলিশ প্রাকটিস করবে। আইসিটি ও  বাংলা পড়ার পাশাপাশি তার মধ্যে  এই নিয়ম এ ৩৪ দিনের মধ্যে সুবিধা করে মোটামুটি ১৮/২০ দিন ইংলিশ করলেই হবে , বেশি দুর্বল হলে রেগুলার ই পরো। টেস্ট পেপার থেকে প্র্যাক্টিস করবে । আর কোনো বই দরকার নেই তেমন।

 

৭.  বাংলা

আইসিটি ১৬ দিনে শেষ করার পর থেকে ১২am- ৩ am টাইম তে বাংলা পড়বে । আজ হতে ৩৪ তম দিন অর্থাৎ ৫ আগস্ট এর মধ্যে বাংলা শেষ করবে । বাংলা পড়ার জন্য ১৮ দিন পাচ্ছ।

বই, এবং টেস্ট পেপার সলভ মাস্ট।

এই রুটিন ফলো করলে সর্বোচ্চ ৩৪ দিনে অর্থাৎ ৫ আগস্ট এর মধ্যে রিভিশন শেষ হবে। ৫ আগস্ট থেকে ১৩ আগস্ট পর্যন্ত কোচিং এ বা বাসায় সাবজেক্ট পেপার wise প্রতিদিন মডেল টেস্ট দিবে ও কি কি ভুল হয় তা মিলিয়ে দেখবে, প্রবলেম সলভ করবে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *